সেক্স কি, কত প্রকার ও কী কী?

সেক্স হলো এক ধরনের শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে মানুষ শারীরিক এবং মানসিক সুখ লাভের মাধ্যমে একাকীত্ব দূর করে এবং বংশ বিস্তার করে থাকে। সেক্স বা যৌন সঙ্গম বংশ বিস্তারের প্রধান হাতিয়ার হলেও বর্তমান সময়ে এটি আরাম-আয়েশ এবং সুখ-শান্তির অন্যতম একটা পদ্ধতি হিসেবে দাঁড়িয়েছে। 

Ask Question

 

সেক্স কাকে বলে?

একজন নারী এবং একজন পুরুষ যখন তাদের নিজেদের মনোবাসনা পূরণ এবং সন্তান জন্মদানের লক্ষ্যে তাদের নিজেদের যৌন অঙ্গ ব্যবহার করে মিলিত হয় তখন তাদের মধ্যে সেক্স বা যৌনসঙ্গম সংঘটিত হয়। 

Honey Sponsored

বিবাহিত নারী এবং পুরুষদের মধ্যে সেক্স সামাজিক এবং আইনগত ভাবে অনুমোদিত হলেও অবিবাহিত অবস্থায় এটি অবৈধ বলে ধরা হয়। ইসলাম ধর্ম সহ অন্যান্য ধর্ম অনুযায়ী বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হওয়া ছাড়া যৌন সঙ্গমে লিপ্ত হওয়া মহাপাপ। 

সেক্স মূলত দুই প্রকার। অ্যানাল সেক্স এবং ভ্যাজাইনাল সেক্স। অ্যানাল সেক্স বলতে বোঝায় পায়ুপথে এবং ভ্যাজাইনাল সেক্স বলতে বোঝায় যোনিপথে মিলিত হওয়া। তবে বৈজ্ঞানিক গবেষণা অনুযায়ী পায়ুপথে যৌনসঙ্গম নারী এবং পুরুষ উভয়ের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর।

 তাছাড়া পৃথিবীতে প্রায় ৮৫০ ধরনের সেক্স রয়েছে। যদিও এই সবগুলো পৃথিবীর কোন মানুষের পক্ষে আয়ত্ত করা সম্ভব নয়। আবার পজিশন ভেধে এটি বিভিন্ন ধরনের হতে পারে। সেক্স বা যৌন সঙ্গমে জড়িত হতে চাইলে দুইটি জিনিস প্রয়োজন। একটি হলো সুন্দর মন মানসিকতা এবং অপরটি হল সেক্সের জন্য উপযুক্ত শরীর। 

তবে বর্তমান সময়ে মানুষ নিজের বিপরীত লিঙ্গের সঙ্গী ছাড়াও বিভিন্ন উপায়ে সেক্স এর মত যৌন স্বাদ উপভোগ করছে। এই উপায়ে গুলোর মধ্যে সেক্স টয়, হস্তমৈথুন, সমকামিতা ইত্যাদি অন্যতম। সেক্স বা যৌনসঙ্গম সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে বিশদ ধারণা পেতে নিচের নাম্বার গুলো তে একবার চোখ বুলিয়ে নিতে পারেন। 

  • ১. Homosexuality (সমলিঙ্গের প্রতি আকর্ষণ)
  • Heterosexuality (বিপরীত লিঙ্গের প্রতি আকর্ষণ)
  • Transsexualism (নিজেকে বিপরীত লিঙ্গের মানুষ মনে করা)
  • Transvestism (বিপরীত লিঙ্গের পোষাক পড়া)
  • Bisexuality (উভলিঙ্গের প্রতি যৌন আকর্ষণ থাকা)
  • Asexuality (কারও প্রতি যৌনাকাঙ্খা না থাকা)
  • Pansexuality (সর্বলিঙ্গের ওপরই যৌন আকর্ষণ)
  • Autosexulity (নিজের প্রতি যৌন আকর্ষণ)
  • Sadism (আরেকজনের আঘাত করে যৌনতৃপ্তি লাভ করা)
  • Masochism (নিজেকে কষ্ট দেয়া)
  • Fetishism (বস্তুর প্রতি যৌন আসক্তি)
  • Exhibitionism (নিজের যৌনাঙ্গ প্রদর্শনের প্রবণতা)
  • Zoophilia (পশুর প্রতি যৌন আসক্তি)
  • Voyeurism (অন্যের যৌনাঙ্গ দেখার আসক্তি)
  • Sapiosexual (বোধকামী)

RelatedPosts

গর্ভাবস্থায় সহবাস করা কতটা নিরাপদ

গর্ভাবস্থায় সহবাস করা কতটা নিরাপদ?

গর্ভাবস্থায় সহবাস করা কতটা নিরাপদ সে ব্যাপারে প্রত্যেক গর্ভবতী মহিলার জানা অত্যন্ত জরুরী। কারণ অন্তঃসত্ত্বা নারী এবং গর্ভের সন্তানের জন্য ছোটখাটো কিছু ভুল বড় ধরনের বিপদ বয়ে আনতে... Continue

মাসিক মিস হওয়ার কত দিন পর প্রেগন্যান্ট বোঝা যায়

মাসিক মিস হওয়ার কত দিন পর প্রেগন্যান্ট বোঝা যায়

প্রশ্ন হল মাসিক মিস হওয়ার কত দিন পর প্রেগন্যান্ট বোঝা যায় ? পিরিয়ড বা মাসিকের তারিখ পার হয়ে যাবার পর অনেকেই দুশ্চিন্তা করে থাকেন যে গর্ভবতী হয়ে পড়লেন... Continue

ইরেকটাইল ডিসফাংশন

ইরেকটাইল ডিসফাংশন থেকে মুক্তির উপায়

ইরেকটাইল ডিসফাংশন বা পুরুষত্বহীনতা বলতে বোঝানো হয় যৌন সঙ্গমের সময় লিঙ্গের উত্থান না হওয়াকে। অর্থাৎ কোন পুরুষ যদি তার সঙ্গিনীর সাথে যৌন সঙ্গমের সময় যোনিত লিঙ্গ প্রবেশের জন্য... Continue

female health

নোরিক্স পিল খাওয়ার নিয়ম

নোরিক্স পিল খাওয়ার নিয়ম বাজারের অন্যান্য ইমারজেন্সি পিল গুলোর মতই। তবে লিভানোরজেস্টেরল জাতীয় ঔষধ গুলোর ট্যাবলেটের সংখ্যা অনুযায়ী খাওয়ার নিয়মের ভিন্নতা দেখা দিতে পারে। যেহেতু এই পিল ইমার্জেন্সি... Continue

ফেমিকন-এর-ছবি

ফেমিকন খাওয়ার নিয়ম, পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া, দাম ও উপকারিতা

ফেমিকন খাওয়ার নিয়ম সম্পর্কে প্রত্যেক বিবাহিত মহিলা এবং পুরুষদের অবগত হওয়া উচিত। আমাদের দেশের প্রায় ৪০% বিবাহিত মহিলারা জীবনের কোন না কোন সময়ে ফেমিকন পিল সেবন করে থাকেন।... Continue

মাসিক না হওয়ার কারণ

নিয়মিত মাসিক না হওয়ার কারণ গুলো জেনে নিন

মাসিক না হওয়ার কারণ হিসেবে সাধারণত অনেকেই গর্ভধারণকে দায়ী করে থাকেন। কিন্তু গর্ভধারণ ছাড়াও এমন অনেক কারণ রয়েছে যেগুলো সঠিক সময়ে মাসিক হতে বাধা প্রদান করে। সাধারণত সাধারণত... Continue